মঙ্গলবার, ০৫ Jul ২০২২, ০৩:০৪ অপরাহ্ন

সিলেটে স্বেচ্ছাসেবক দল থেকে পদত্যাগ করলেন যারা

সিলেটে স্বেচ্ছাসেবক দল থেকে পদত্যাগ করলেন যারা

sylhetlive24.com/সিলেট লাইভ


বিশেষ প্রতিবেদক

বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সহ-স্বেচ্ছাসেবক সম্পাদক হওয়া সত্ত্বেও তার মতামত ও পরামর্শ উপেক্ষা করে সিলেট জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের কমিটি ঘোষণা করায় সিলেটে জাতীয়তাবাদী দলের ভ্যানগার্ড হিসেবে পরিচিত মুখ এডভোকেট সামসুজ্জামান জামান গত বুধবার রাতে দলের সকল পদ থেকে পদত্যাগের ঘোষণা দেন।

এরই ধারাবাহিকতায় এবার নবগঠিত সিলেট জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের কমিটিকে ভারসাম্যহীন, নেতাকর্মীদের অবমূল্যায়ন, পকেট কমিটি উল্লেখ করে পদত্যাগ করেছেন যুগ্ম আহ্বায়কসহ আরও ৯ নেতা।

এর মধ্যে সদ্য ঘোষিত সিলেট জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক কমিটি থেকে পদত্যাগ করেছেন- যুগ্ম আহ্বায়ক এমদাদ বক্স, সদস্য মওদুদুল হক, শহীদুল ইসলাম কাদির, আলতাফ হোসেন বিল্লাল, আমিনুল হক বেলাল ও শাহিদুল ইসলাম চৌধুরী লাহিন এবং সিলেট মহানগর কমিটি থেকে পদত্যাগ করেছেন- সদস্য আব্দুর রকিব তুহিন, রুজেল আহমদ চৌধুরী, আব্দুল হান্নান।

নবগঠিত কমিটির এসব নেতাকর্মীরা শনিবার ২১ আগস্ট কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক দলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বরাবর পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন সিলেট সিটি করপোরেশনের ২১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও মহানগর কমিটি থেকে পদত্যাগ করা সদস্য আব্দুর রকিব তুহিন।

তিনি বলেন, কমিটি দেখে আমরা বিস্মিত ও হতবাক। যারা বিগত আন্দোলন-সংগ্রামে রাজপথে সক্রিয় ভূমিকা রেখে জেল-জুলুম নির্যাতনের শিকার হয়েছিলেন, তাদেরকে বাদ দিয়ে নিষ্ক্রিয় ও অযোগ্যদের নিয়ে একটি হাস্যকর কমিটি উপহার দিয়েছে। আমাদেরকে কমিটিতে এমন এক জায়গায় স্থান দিয়েছেন, যা উপহাসের পাত্র হিসেবে পরিণত করেছে।

পদত্যাগপত্রে নেতাকর্মীরা আরও উল্লেখ করেন, মওদুদুল হক মওদুদ বিলুপ্ত কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক ছিলেন, কিন্তু বর্তমান কমিটিতে তাকে ৩১নং সদস্য করা হয়েছে। দুইবারের সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর ও মহানগর বিএনপির সহ-প্রচার সম্পাদক আব্দুর রকিব তুহিনকেও ৩৮নং সদস্য পদ দেওয়া হয়। জেলা বিএনপির সহ-স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক আমিনুল হক বেলালকে ৪৯নং সদস্য করা হয়। সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক শাহিদুল ইসলাম কাদিরকে সদস্য, জৈন্তাপুর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক আলতাফ হোসেন বিলালকে কমিটির সর্বশেষ ৬১নং সদস্য করা হয়। এছাড়া জেলা ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি রুজেল আহমদ চৌধুরীকে সদস্য করা। এই কমিটিতে এসব নেতাকর্মীদের সদস্যপদ দিয়ে অবমূল্যায়ন করা হয়েছে। তাই নেতাকর্মীরা ক্ষোভ প্রকাশ করে পদত্যাগ করেন।

এরআগে, অ্যাডভোকেট সামসুজ্জামান জামান দল ত্যাগের পর গোলাপগঞ্জ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের অনেক ত্যাগী নেতা কর্মীরা নিজেদের ফেসবুকের টাইম লাইনে স্ট্যাটাস দিয়ে পদত্যাগ করছেন।

পরে বুধবার রাতে গোলাপগঞ্জ পৌর স্বেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক রাজু আহমদ চৌধুরী ও উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক হাজী আবুল কালাম, সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক রেজাউল ইসলাম রেজা স্বেচ্ছাসেবক দলের সকল পদ পদবী থেকে পদত্যাগ করেন।

এরই ধারাবহিকতায় বৃহস্পতিবার উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম আহবায়ক আজিজুর রহমান, দেলওয়ার হোসেন, ফয়েজ আহমদ, জাকির হোসেন খান, বাঘা ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক সাবুল আহমদ, শরীফগঞ্জ ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি নাজিম উদ্দিন, বাদেপাশা ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক মুহিবুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক জুনেদ আহমদ তারাও স্বেচ্ছাসেবক দলের সকল পদ পদবী থেকে পদত্যাগ করেন।

গোলাপগঞ্জ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক হাজী আবুল কালাম সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বুধবার রাতে আমরা নিজেদের ফেসবুক টাইম লাইনে স্ট্যাটাস দিয়ে স্বেচ্ছায় স্বেচ্ছাসেবক দলের সকল পদ পদবী থেকে পদত্যাগ করেছি। এখন আমরা সবাই এক সাথে গনমাধ্যমকে জানিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বেচ্ছাসেবক দলের সকল পদ পদবি থেকে পদত্যাগ করলাম। এখন থেকে আমরা বিএনপি বা অঙ্গ সংগঠনের কেউ না।

প্রসঙ্গত- গত মঙ্গলবার ১৭ আগস্ট রাতে দলের কেন্দ্রীয় সভাপতি মুস্তাফিজুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদের ভুঁইয়া জুয়েল সিলেট জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের কমটির অনুমোদন দেন। উভয় কমিটিতে ৬১ জন করে ১২২ জন স্থান পেয়েছেন।






© এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সর্বস্বত্ব SylhetLive24.Com কর্তৃক সংরক্ষিত ।

Design BY Web Nest BD
ThemesBazar-Jowfhowo