সোমবার, ০৪ Jul ২০২২, ১২:২৬ পূর্বাহ্ন

সিলেটে আশ্রয়কেন্দ্রে নারী নিপীড়নের অভিযোগ, এলাকায় তোলপাড়

সিলেটে আশ্রয়কেন্দ্রে নারী নিপীড়নের অভিযোগ, এলাকায় তোলপাড়

sylhetlive24.com/সিলেট লাইভ


সিলেট লাইভ ডেস্ক

সিলেটের দক্ষিণ সুরমার মোল্লারগাঁও ইউনিয়নের লক্ষিপাশাস্থ সরকারি আশ্রয়কেন্দ্রে নারী নিপীড়নের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ নিয়ে এলাকায় তোলপাড় চলছে।

এ ঘটনায় গত ৪ এপ্রিল দক্ষিণ সুরমা থানায় ও এসএমপি পুলিশ কমিশনারের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন রাজিয়া বেগম (৩৫) নামের ওই নারী। তিনি লক্ষিপাশা আশ্রয় কেন্দ্রের ৬২ নম্বর ঘরের বাসিন্দা।

অভিযোগে বলা হয়, রাজিয়া বেগম দক্ষিণ সুরমার লক্ষিপাশা আশ্রয় কেন্দ্রের ৬২ নম্বর ঘরে মা, এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে বসবাস করে আসছেন। তিনি একজন বিধবা নারী এবং কমিউনিটি পুলিশের সদস্য। আশ্রয়কেন্দ্রে ওঠার পর থেকে মোল্লারগাঁও ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের মেম্বার মকব্বির আলী (৪৫) নানাভাবে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় গত বছরের ২০ সেপ্টেম্বর বেলা সাড়ে ১২টার দিকে মেম্বার মকব্বির আলী আশ্রয়কেন্দ্রের ৬২ নং ঘরে গিয়ে ভিকটিমকে কুপ্রস্তাব দিলে তিনি প্রতিবাদ করেন। এসময় মকব্বির আলী দ্রæত পালিয়ে যান। পরে একই বছরের ১৮ অক্টোবর সকাল ১১টার দিকে ইউপি সদস্য মকব্বির আলী আশ্রযকেন্দ্রের ৬২ নং ঘরে আবার যান ও ভিকটিমকে কুপ্রস্তাব দেন। ভিকটিম রাজি না হলে তিনি তাকে যৌন হয়রানি করেন। এসময় ঘরে ভিকটিমের মা ও সন্তানেরা উপস্থিত ছিলেন। পরে খবর পেয়ে স্থানীয় এলাকার মানুষ ঘটনাস্থলে যান।

এ বিষয়ে ভিকটিম রাজিয়া বেগম বলেন,‘ আসামি একজন খারাপ প্রকৃতির লোক। আমাকে ধারাবাহিকভাবে কুপ্রস্তাব দেওয়ায় বাধ্য হয়ে থানায় অভিযোগ করেছি।’

অভিযোগ অস্বীকার করে মোল্লারগাঁও ইউনিয়নের ইউপি সদস্য মকব্বির আলী বলেন,‘ আমি তার সঙ্গে কোনো খারাপ আচরণ করিনি। এটা মিথ্যা অভিযোগ।’

এ বিষয়ে অভিযোগের তদন্ত কর্মকর্তা দক্ষিণ সুরমা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শাহিন আলী বলেন,‘ আমরা রাজিয়া বেগমের অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনাস্থল পরিদর্শনে গিয়ে সাক্ষগ্রহণের কাজ চলছে।’






© এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সর্বস্বত্ব SylhetLive24.Com কর্তৃক সংরক্ষিত ।

Design BY Web Nest BD
ThemesBazar-Jowfhowo