বুধবার, ০৬ Jul ২০২২, ১২:৫৪ অপরাহ্ন

সিলেটে আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে যুবলীগ নেতার স্ত্রী’র মামলা

সিলেটে আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে যুবলীগ নেতার স্ত্রী’র মামলা

sylhetlive24.com/সিলেট লাইভ


কুলাউড়া প্রতিনিধি

সিলেটের কুলাউড়া উপজেলার সীমান্তবর্তী শরীফপুর ইউনিয়নে এক সালিশ বিচারের জের ধরে সৃষ্ট হামলার ঘটনায় স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাসহ ১০ বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন যুবলীগ নেতার স্ত্রী। এঘটনায় কে বেশি ক্ষমতাবান ? তা নিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

স্থানীয় লোকজন জানান, ২৯ ডিসেম্বর শরীফপুরের পূর্বভাগ গ্রামে বিজিবির ক্যাম্পের দক্ষিণ পাশে এক সালিশ বিচার অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে বিচারক ছিলেন বর্তমানের নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান এবং শরীফপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন চিনু। উভয় পক্ষের বক্তব্য শোনার পর উপস্থিত সকল একমত পোষন করে নতুন চেয়ারম্যানের রায়কে স্বাগত জানান। শুধু সাবেক চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন চিনু তাদের রায়কে অমান্য করেন। শরীফপুর ইউনিয়ন যুবলীগ সহ-সভাপতি হীরন খান (৪৯) রায় মেনে নিতে শরীফপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন চিনুকে অনুরোধ করলে তিনি তাকে অশালিন ভাষায় গালিগাজ করেন। এমনকি পরে দেখে নেয়ার হুমকি দেন।

শরীফপুর ইউনিয়ন যুবলীগ সহ-সভাপতি হীরন খান জানান, বৈঠকের দিন সন্ধ্যার পর আমতলা বাজারে আমার দোকানে গিয়ে সাবেক চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন চিনুসহ ৮-১০ জন লোক বেধড়ক মারপিট করে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালান। এ সময় মাথাসহ হাত ও পায়ে মারাত্মক জখম হয়। তাৎক্ষণিক আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে প্রায় ১ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। পরে স্থানীয় লোকজন আহত অবস্থায় তাকে কমলগঞ্জ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এ ঘটনায় যুবলীগ নেতা হীরন খানের স্ত্রী বাদী হয়ে শরীফপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন চিনু (৪৯)কে প্রধান আসামী করে ১০ জনের বিরুদ্ধে কুলাউড়া থানায় মামলা দায়ের করেন।

অভিযুক্ত আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন চিনু ঘটনা অস্বীকার করে বলেন, আমতলাবাজারে সন্ধার পর দোকানে ক্রেতা বিক্রেতার মাঝে তর্কবিতর্কের এক প্রর্যায়ে হাতাহাতি হয়েছে। এঘটনায় দোকানি আহত হওয়ার মতো কোন ঘটনা ঘটেনি।

নব নির্বাচিত শরীফপুর ইউপি চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ঘটনার দিন দুপুরে গ্রাম্য এক সালিশে যুবলীগের সহ-সভাপতি হীরন খানকে অশালিন ভাষায় গালিগালাজ করেন। উপস্থিত সকলের সম্মুখে তাকে হুমকি দিয়েছেন। পরে তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে গিয়ে হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত করছেন বলে স্থানীয়রা জানান।

কুলাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিনয় ভূষন রায় জানান, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। তদন্তক্রমে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।






© এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সর্বস্বত্ব SylhetLive24.Com কর্তৃক সংরক্ষিত ।

Design BY Web Nest BD
ThemesBazar-Jowfhowo